টিউমার ও ক্যান্সার

টিউমার ও ক্যান্সার
(স্বাস্থ্য কথা)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

রুগীরা শরীরের কোথাও বল আকারে ফুলে উঠলে টিউমার মনে করে। টিউমার কথাটা এসেছে টিউমর থেকে। যার অর্থ ফুলে উঠা। আগের দিনে গলার থায়রয়েড গ্লান্ড বড় হয়ে গেলে গ্রামের মানুষ বলতো ঘ্যাগ। ডাক্তাররা বলেন গলগণ্ড রোগ। ইংরেজিতে বলা হয় গয়টার। খাবার পানিতে আয়োডিনের অভাব হলে সাধারণত গলগণ্ড রোগ হয়। এই গলগণ্ড রোগকেও এখন রুগীরা টিউমার মনে করে। শরীরের কোথাও জীবাণু আক্রান্ত হলে সেখানকার লিম্ফ নোড বা লসিকাগ্রন্থি রিয়েকশন করে বড় হয়ে যায়। রুগীরা এটাকেও টিউমার মনে করে। আসলে ফুলে উঠলে বা চাক্কা হলেই টিউমার না। টিউমার হলো বিশেষ ধরনের রোগ। টিউমারের ডাক্তারি ভাষার উপযুক্ত শব্দ হলো নিউপ্লাজম।
Continue reading “টিউমার ও ক্যান্সার”

ব্লাড ক্যান্সার ধরা পরার পরীক্ষা

ব্লাড ক্যান্সার ধরা পরার পরীক্ষা
(স্বাস্থ্য কথা)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার
এম ফিল (প্যাথলজি)

অনেকেই এমন একটা প্রশ্ন করেন “রক্তে ক্যান্সার হয়েছে কিনা কি পরীক্ষা করলে ধরা পরবে?” রক্তের ক্যান্সার বা লিউকেমিয়া হলে শরীর দেখে বুঝা মুস্কিল। তাই অনেকে এমন প্রশ্ন করেন। ব্লাড ক্যান্সার হলে শরীরে যেসব উপসর্গ দেখা দেয় তা অনেক রোগের উপসর্গের সাথে মিল আছে। তাই ব্লাড ক্যান্সারের নির্দিষ্ট কোন উপসর্গ নেই। যেমন, শরীর খুব দুর্বল হয়ে পড়া, জ্বর হওয়া, দাঁতের মাড়ি দিয়ে রক্ত পড়া, হাড়ের ভিতর ব্যথা করা, চামড়ায় রক্তকক্ষরণ হয়ে জখমের মতো দাগ হওয়া, ইত্যাদি। এইসব লক্ষণ অন্য অনেক রোগেও আছে। এইসব লক্ষণ থাকলে অবশ্যই রক্ত পরীক্ষা করতে হবে। অনেক পরীক্ষা করা যায়। তবে কিছু করতে না পারলেও শুধু রক্তের ডিসি বা ডিফারেন্সিয়াল কাউন্ট (অব ডাব্লিওবিসি) পরীক্ষাটি করতে পারলে ব্লাড ক্যান্সার ধরা যাবে। একটি কাঁচের স্লাইডে এক ফোটা রক্ত নিয়ে আরেক স্লাইড দিয়ে ঘষা দিয়ে ব্লাড ফিল্ম তৈরি করা হয়। মাত্র এক Continue reading “ব্লাড ক্যান্সার ধরা পরার পরীক্ষা”

ঘড়ি

ঘড়ি
(স্মৃতির পাতা থেকে)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

আগের দিনে কারো কারো কাছে ঘড়ি একটি বিলাসিতার বস্তু ছিল। আগেরদিন বলতে আমি বুঝাচ্ছি আমার শৈশবের দিনগুলি। তখন সবচেয়ে দামী যে লুঙ্গী ছিল সেইটার নাম ছিল টুইচ লুঙ্গী। সেই লুঙ্গীর দাম ছিল ৪ টাকা। এমন দামের লুঙ্গী পরলে মানুষ মনে করতেন ফেরাংগী করে। সেই যুগে একটি ঘড়ির দাম ছিল ১০০/২০০ টাকা। তার মানে এটা একটা দামী জিনিস ছিল। ঘড়ির কাজ ছিল সময় দেখানো। যারা স্কুলে যেতেন বা অফিসে Continue reading “ঘড়ি”

যেভাবে সরকারি চাকরি পেলাম

যেভাবে সরকারি চাকরি পেলাম
(স্মৃতির পাতা থেকে)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

যথাসময়ে পাস করা এবং যথাসময়ে চাকরি পাওয়া আমার জন্য খুব প্রয়োজন ছিল। তাই আমি কোন কারনেই পরীক্ষা পিছানো পছন্দ করতাম না। কিন্তু নেতৃস্থানীয় ক্লাসমেটদের ইচ্ছার বিরোদ্ধে কথা বলার সাহস আমার ছিল না। পরীক্ষা দেয়াটা সবার কাছে ভীতিকর ব্যাপার ছিল। সামান্য একটু অযুহাত দেখাতে পারলেই পরীক্ষা পিছানোর সংগ্রাম করতো। আর সংগ্রামে নেতৃত্ব Continue reading “যেভাবে সরকারি চাকরি পেলাম”

দুধে এন্টিবায়োটিক না মিশালেও কি দুধে এন্টিবায়োটিক থাকতে পারে?

দুধে এন্টিবায়োটিক না মিশালেও কি দুধে এন্টিবায়োটিক থাকতে পারে?
(স্বাস্থ্য কথা)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

পারে। কয়েকপ্রকার এন্টিবায়োটিক আছে যেগুলি গাভীর মাংসে ইঞ্জেকশন করা হলে সেগুলি গাভীর দুধের সাথে বের হয়। তাই এই দুধ ল্যাবে পরীক্ষা করালে দুধে এন্টিবায়োটিক পাওয়া যায়।

ফার্মে পাস্তুরিত পদ্ধতিতে জীবাণুমুক্ত করে দুধ প্যাকেট করা হয়। পরীক্ষা করে এন্টিবায়োটিক আছে কিনা তা দেখা হয় কিনা আমার জানা নেই। যদি তা না হয়, তবে হাজার হাজার মানুষের শরীরে ডাক্তার ছাড়াই এন্টিবায়োটিক প্রবেশ করছে। আর তারা হয়ে পরছে এন্টিবায়োটিক রেজিস্টেন্ট।
১৫/৭/২০১৯ ইং

রেডিও

রেডিও
(স্মৃতির পাতা থেকে)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

আমি প্রথম রেডিও দেখি একদম ছোট বেলায়। সন্ধার সময় আমাদের বাড়ির পাশ দিয়ে রেডিও হাতে নিয়ে ছোট চওনার শওকত ডাক্তার সাহেব হেটে যাচ্ছিলেন। ঘাড় কন্ঠের কথা শুনে আমরা বিস্মিত হই। এগিয়ে গিয়ে দেখি একজন হাতে করে একটা বাক্স নিয়ে যাচ্ছেন। সেখান থেকেই কথা বের হচ্ছে। আমি, ভাই ও বুবু এগিয়ে গেলাম ছোট কাক্কু সালাম তালুকদারের ঘরে। ছোট কাক্কু শওকত ডাক্তার সাহেবের বন্ধু ছিলেন। তিনি রেডিও কিনে বন্ধুকে দেখানোর জন্য নিয়ে এসেছিলেন। Continue reading “রেডিও”

সাইকেল

সাইকেল
(স্মৃতির পাতা থেকে)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

বাই-সাইকেলকেই আমরা ছোট বেলা থেকে সাইকেল বলে অভ্যস্ত হয়েছি। বাই মানে দুই, সাইকেল হলো চাকা। দুই চাকার গাড়ী বলেই এটাকে বাই সাইকেল বলা হয়। পায়ে প্যাডেল ঘুরিয়ে চেইনের মাধ্যমে চাকা ঘুরিয়ে চলে যাওয়াটা হলো সাইকেল চালানো। এই সাইকেল চালানোটা হলো সারা বিশ্বে বহুল ব্যবহারিত সহজ যান। জালানি তেল খরচে মোটর যন্ত্র সাইকেলে Continue reading “সাইকেল”

সরল বিশ্বাসে সার্টিফিকেট

সরল বিশ্বাসে সার্টিফিকেট
(স্মৃতির পাতা থেকে)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

প্রায় ৩১ বছর আগের কথা। সবেমাত্র আমার সরকারি চাকরি হয়েছে গ্রামে। উপজেলা থানা থেকে প্রায় ১০ কিলোমিটার দূরে। পুলিশি নিরাপত্তা ছিল কল্পনার বাইরে। নিজের নিরাপত্তার দায়িত্ব নিজের কাছেই ছিল। এলাকার জনগনের সাথে খাতির দিয়ে মোটামুটি নিরাপদেই ছিলাম। একা থাকতাম একটা পরিত্যক্ত টিনসেড বাড়িতে হ্যারিকেন জ্বালিয়ে। তাও ভয় পেতাম না। উঠানে চেয়ারে বসে গভীর রাত পর্যন্ত মেঘের ভিতর চাঁদের লুকোচুরি উপভোগ করতাম। অল্পদিনের এই জীবন ছিল জীবনের অন্যরকম এক অধ্যায়।
Continue reading “সরল বিশ্বাসে সার্টিফিকেট”

এনাটমির পড়া

এনাটমির পড়া
(স্মৃতির পাতা থেকে)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

এম বি বি এস ক্লাস শুরু হয় আমাদের এনাটমি দিয়েই। ১৯৭৯ সনের ডিসেম্বরের ১৮ বা ১৯ তারিখে ভর্তি হলেও ক্লাস শুরু হয় আমাদের ১৯৮০ সনের জানুয়ারি মাস থেকে। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ আমাদের টাংগাইল থেকে কাছে হওয়াতে এবং কম খরচে পড়তে পারব এই চিন্তা করেই আমি ভর্তির দরখাস্ত ফর্মে প্রথম পছন্দ ময়মনসিংহ দিয়েছিলাম। তাই আমি Continue reading “এনাটমির পড়া”

রাজধানী এক্সপ্রেস ট্রেনে

রাজধানী এক্সপ্রেস ট্রেনে
(স্মৃতির পাতা থেকে)
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার

সিদ্ধান্ত নিলাম আমি, দোস্ত ইকবাল ও আমিনুল ভাই এক সাথে দিল্লী, আগ্রা জয়পুর ভ্রমণ করব। ইকবাল মানে আমাদের ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের আমাদের এম-১৭ ব্যাচের ইকবাল, বর্তমানে প্রফেসর ডাঃ এ এফ এম সালেহ, এই মেডিকেল কলেজের প্যাথলজি বিভাগের প্রধান।
Continue reading “রাজধানী এক্সপ্রেস ট্রেনে”