প্যাথলজিক্যাল পরীক্ষা

(স্বাস্থ্য কথা)
সাধারণ কয়েকটি প্যাথলজিক্যাল পরীক্ষার গুরুত্ব
#রক্তের CBC একটি পরীক্ষা যা সবচেয়ে বেশী করা হয়। শরীরে বিভিন্ন ইনফেকশন হলে, ব্লাড ক্যান্সার হলে অথবা বিবিধ রোগ হলে এই পরীক্ষার রেজাল্ট থেকে

শহজেই অনুমান করা যায় বা নির্ণয় করা যায়।
#রক্তের RBS দেখে সুগার বেশী আছে কিনা তা জানা যায়। যদি সুগার বেশী থাকে তবে FBS অথবা 2HABF পরীক্ষা করে ডায়াবেটিস রোগ নির্নয় করা যায়।
#রক্তের Creatinine পরীক্ষা করে কিডনির ভাল মন্দ বুঝা যায়।
#রক্তের SGPT পরীক্ষা করে লিভারের ভাল মন্দ বুঝা যায়।
#রক্তের Bilirubin টেস্ট করে জন্ডিস এর মাত্রা বুঝা জায়।
#রক্তের Lipid Profile টেস্ট করে বিভিন্ন প্রকার তৈল জাতীয় পদার্থের পরিমান জানা যায় এবং হার্ট এটাক অথবা স্ট্রোক এর ঝুকি আছে কিনা তা জানা যায়।
# প্রশ্রাবের R/E টেস্ট করে কিডনি ও প্রশ্রাবের থলির খবর নেয়া যায়।
#পায়খানার R/E টেস্ট করে পরিপাক তন্ত্রের ইনফেকশন ও অন্যান্য খবর জানা যায়।
==
ডাঃ সাদেকুল ইসলাম তালুকদার
ফেইসবুক পোস্ট
সাধারণ স্বাস্থ্য জ্ঞান
২৬/৭/২০১৭

Google Ads




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *